এবার আবরারের ছোট ভাইকে পেটাল পুলিশ

ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেটের সময় : বুধবার, ৯ অক্টোবর, ২০১৯
  • ১৩৮

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদের ছোট ভাই আবরার ফায়াজকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে পুলিশের বিরুদ্ধে। আবরার ফায়াজের অভিযোগ, বুয়েটের উপাচার্য (ভিসি) অধ্যাপক সাইফুল ইসলাম বুধবার (৯ অক্টোবর) বিকালে তার পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে গেলে স্থানীয়দের বিক্ষোভের মুখে পড়েন। এ সময় ভিসির সঙ্গে কথা বলতে গেলে তাকে (ফায়াজ) ও তার ফুপাতো ভাইয়ের স্ত্রী তমাকে পুলিশ মারধর করে।

বুধবার বিকাল ৪টা ৩৭ মিনিটে রায়ডাঙ্গা গ্রামে উপস্থিত হয়ে আবরারের কবর জিয়ারত করেন ভিসি সাইফুল ইসলাম। এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর বিপুল সংখ্যক সদস্য। কবর জিয়ারতের পরে সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন তিনি। এরপরই আবরার ফাহাদের বাড়ির দিকে রওনা হন ভিসি সাইফুল ইসলাম। কিন্তু স্থানীয় নারী-পুরুষ-শিশুদের বিক্ষোভের মুখে পড়েন। এ সময় আবরার ফায়াজ ও তার ফুপাতো ভাইয়ের স্ত্রী তমা ভিসি সাইফুল ইসলামের সঙ্গে কথা বলতে চান। কিন্তু তারা পুলিশি বাধার মুখে পড়েন।

স্থানীয়দের অভিযোগ, ভিসির সঙ্গে কথা বলতে চাইলে আবরার ফায়াজ ও তমাকে পুলিশ মারধর করে। তারা আবরার ফায়াজ ও তমার ওপর পুলিশি হামলার বিচার দাবি করেন।

একই অভিযোগ করেন আবরারের বাবা বরকত উল্লাহ। তিনি বলেন, ‘ভিসি এসে আমাদের বাড়ি পর্যন্ত না গিয়েই ফিরে গেছেন। বিক্ষোভের মধ্যে আমার ছোট ছেলে ফায়াজ ও তমার ওপর পুলিশ হামলা করে।’

এ ব্যাপারে কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার এসএম তানভীর আরাফাত গণমাধ্যমকে বলেন, ‘আপনারা ঘটনাস্থলের ভিডিও ফুটেজগুলো দেখেন। আমি বলতে পারি, পুলিশের বিরুদ্ধে এ অভিযোগ মিথ্যা। আবরার ফাহাদের পরিবারের প্রতি যথেষ্ট আন্তরিক পুলিশ। সেখানে এ ধরনের কোনও হামলার ঘটনা ঘটেনি।’

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..
© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত ২০২১
Design and Developed by IT Craft in association with INTENT